ঢাকা ০৭:৫৭ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ০১ ডিসেম্বর ২০২২, ১৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

কেবল শিল্প কর্মচারী ইউনিয়নের দ্বি-বার্ষিক নির্বাচনে শাহজাহান-মুজিবর এবং কাদের-কামরুজ্জামান প্যানেলের তীব্র প্রতিদ্বন্দ্বিতার সম্ভাবনা

###    খুলনায় বাংলাদেশ কেবল শিল্প কর্মচারী ইউনিয়নের দ্বি-বার্ষিক নির্বাচন জমে উঠেছে। ২৪নভেম্বর বৃহষ্পতিবার অনুষ্ঠিতব্য এ নির্বাচনে শাহজাহান-মুজিবর এবং কাদের-কামরুজ্জামান প্যানেল প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছে। ইতিমধ্যেই উভয় প্যানেলের পক্ষে নেতাকর্মী ও সমর্থকরা নির্বাচনী ক্যাম্পেইনে সরব হয়ে উঠেছে। প্রতিদ্বন্দী্ প্রার্থীরা ছুটছেন ভোটারদের কাছে। এ নির্বাচন জমজমাট প্রচার-প্রচারনায় দুই প্যানেলের তীব্র প্রতিদ্বন্দ্বিতার সম্ভাবনা সৃষ্টি হয়েছে। তবে নির্বাচন কমিশন সুষ্ঠ ও শান্তিপূর্ণ নির্বাচন অনুষ্ঠানে সকল ব্যবস্থা নিয়েছে।  নির্বাচন কমিশন সূত্র জানায়, খুলনার শিরোমনিতে অবস্থিত বাংলাদেশ কেবল শিল্প কর্মচারী ইউনিয়নের দ্বি-বার্ষিক নির্বাচন আগামী বৃহষ্পতিবার ২৪নভেম্বর অনুষ্ঠিত হবে। এ নির্বাচনে সাবেক সভাপতি আ: কাদের খানের নেতৃত্বে কাদের-কামরুজ্জামান প্যানেল এবং বর্তমান সভাপতি মো: শাহাজাহানের নেতৃত্বে শাহাজাহান-মুজিবর প্যানেল প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছে। কর্মচারী ইউনিয়নের ০৯টি পদে দুই প্যানেলের ১৮জন প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। এরমধ্যে শাহাজাহান-মুজিবর  প্যানেলে সভাপতি  মো: শাহাজাহান, সহসভাপতি মো: আতিকুর রহমান আতিক, সাধারন সম্পাদক মো: মুজিবর রহমান মোড়ল, সহ-সাধারন সম্পাদক মো: আলমগীর হোসেন, সাংগঠনিক সম্পাদক মো: আব্দুল মান্নান মনা, দপ্তর সম্পাদক মো: মিজানুর রহমান মিনা, প্রচার সম্পাদক মো: সাজ্জাদ হোসেন, কোষাধ্যক্ষ মো: মুরাদ শেখ ও কার্যনির্বাহী সদস্য পদে মো: আব্দুর রউফ লাঙ্গল প্রতিক নিয়ে এবং কাদের-কামরুজ্জামান প্যানেলে সভাপতি আ: কাদের খান, সহসভাপতি মো: মাইদুল ইসলাম, সাধারন সম্পাদক মো: বেগ কামরুজ্জামান, সহ-সাধারন সম্পাদক মো: মিজানুর রহমান বিশ্বাস, সাংগঠনিক সম্পাদক মো: বিল্রাল হোসেন, দপ্তর সম্পাদক মো: শিমুল হোসেন, প্রচার সম্পাদক মো: শাহনেওয়াজ মোল্লা, কোষাধ্যক্ষ শেখ ইকবাল হোসেন ও কার্যনির্বাহী সদস্য পদে মো: আনোয়ার হোসেন মিন্টু হাতুড়ী প্রতিক নিয়ে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। এ নির্বাচনে উভয় প্যানেলই বিজয়ী হওয়ার বিষয়ে শতভাগ প্রত্যাশা ব্যক্ত করেছেন। শাহাজাহান-মুজিবর প্যানেলে সভাপতি পদপ্রার্থী মো: শাহাজাহান জানান, বিগত দুই বছরে তিনি প্রতিষ্ঠানের উন্নয়নের পাশাপাশি শ্রমিক-কর্মচারীদের পেশাগত উন্নয়ন, পদ মর্যাদা বৃদ্ধি ও সুখে-দুখে তাদের পাশে ছিলেন। সেজন্য বোটাররা তাকেই ভোট দিয়ে আবারও বিজয়ী করবেন বলে প্রত্যাশা করেন। সাধারন সম্পাদক পদপ্রার্থী মো: মুজিবর রহমান মোড়ল জানান, তিনি বিগত নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করে মা্ত্র ২ভোটের ব্যবধানে পরাজিত হন। তবে বিগত সময়ে তিনি শ্রমিক-কর্মচারীদের সুবিধা-অসুবিধায় পাশে ছিলেন। তেমনি ভোটারদের সুযোগ সুবিধা বৃদ্ধি এবং কর্মচারীদের পেশাগত মানোন্নয়নে ও পদোন্নতির জন্য কাজ করেছেন। এছাড়া প্রশাসনের সাথে সহযোগীতা করে প্রতিষ্ঠানের উন্নয়নে কাজ করেছেন। দূর্নীতিমুক্ত ও সুষ্ঠ নির্বাচন হলে তিনিও শাহাজাহান-মুজিবর প্যানেলের বিজয়ে শতভাগ আশাবাদী। প্রতিদ্বন্দ্বি কাদের-কামরুজ্জামান প্যানেলে সভাপতি পদপ্রার্থী আ: কাদের খান জানান, তিনি ২০০৬ সাল থেকে সাতবার কর্মচারী ইউনিয়নের নির্বাচনে বিজয়ী হয়ে ১৪বছর শ্রমিক-কর্মচারীদের সাথে থেকেছেন-পাশে থেকেছেন। তাদের উন্নয়নে সচেষ্ট ছিলেন। গত দুই বছর তিনি কমিটিতে না থাকলেও শ্রমিক-কর্মচারীরা দেখেছেন এবং বুঝেছেন তাদের প্যানেল ক্ষমতায় থাকলে প্রতিষ্ঠান ও কর্মচারীদের উন্নতি হয়। সেজন্য এবারও তিনি ভোটারদের মন জয় করে নির্বাচিত হবেন বলে জানান।

কেবল শিল্প কর্মচারী ইউনিয়নের দ্বি-বার্ষিক নির্বাচন পরিচালনা কমিশনের প্রধান মো: মাহবুবুর রহমান জানান, তিনি এবং অপর দুই সহকারী কমিশনার মাও. আতাউর রহমান ও মো: আহসান হাবিব ইতিমধ্যেই নির্বাচনের যাবতীয় প্রস্তুতি সম্পন্ন করেছেন। এবারের নির্বাচনে নতুন ভোটারসহ মোট ভোটার সংখ্যা ১৬৩জন। আগামী ২৪নভেম্বর সকাল ৯টা থেকে বিকাল সাড়ে তিনটা পর্যন্ত ভোট গ্রহন অনুষ্ঠিত হবে। সুষ্ঠভাবে নির্বাচন অনুষ্ঠানের জন্য প্রতিষ্টানের নিরাপত্তা কর্মী এবং পুলিশকে সহযোগীতার জন্য চিঠি দেয়া হয়েছে। যথাযথ নিরাপত্তার মধ্যেই নির্বাচন সুষ্ঠভাবে সম্পন্ন হবে বলেও তিনি জানান। ##

Tag :

Write Your Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Save Your Email and Others Information

About Author Information

Banglar Dinkal

কেবল শিল্প কর্মচারী ইউনিয়নের দ্বি-বার্ষিক নির্বাচনে শাহজাহান-মুজিবর এবং কাদের-কামরুজ্জামান প্যানেলের তীব্র প্রতিদ্বন্দ্বিতার সম্ভাবনা

প্রকাশিত সময় ০১:৪৮:২৯ পূর্বাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ২৪ নভেম্বর ২০২২

###    খুলনায় বাংলাদেশ কেবল শিল্প কর্মচারী ইউনিয়নের দ্বি-বার্ষিক নির্বাচন জমে উঠেছে। ২৪নভেম্বর বৃহষ্পতিবার অনুষ্ঠিতব্য এ নির্বাচনে শাহজাহান-মুজিবর এবং কাদের-কামরুজ্জামান প্যানেল প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছে। ইতিমধ্যেই উভয় প্যানেলের পক্ষে নেতাকর্মী ও সমর্থকরা নির্বাচনী ক্যাম্পেইনে সরব হয়ে উঠেছে। প্রতিদ্বন্দী্ প্রার্থীরা ছুটছেন ভোটারদের কাছে। এ নির্বাচন জমজমাট প্রচার-প্রচারনায় দুই প্যানেলের তীব্র প্রতিদ্বন্দ্বিতার সম্ভাবনা সৃষ্টি হয়েছে। তবে নির্বাচন কমিশন সুষ্ঠ ও শান্তিপূর্ণ নির্বাচন অনুষ্ঠানে সকল ব্যবস্থা নিয়েছে।  নির্বাচন কমিশন সূত্র জানায়, খুলনার শিরোমনিতে অবস্থিত বাংলাদেশ কেবল শিল্প কর্মচারী ইউনিয়নের দ্বি-বার্ষিক নির্বাচন আগামী বৃহষ্পতিবার ২৪নভেম্বর অনুষ্ঠিত হবে। এ নির্বাচনে সাবেক সভাপতি আ: কাদের খানের নেতৃত্বে কাদের-কামরুজ্জামান প্যানেল এবং বর্তমান সভাপতি মো: শাহাজাহানের নেতৃত্বে শাহাজাহান-মুজিবর প্যানেল প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছে। কর্মচারী ইউনিয়নের ০৯টি পদে দুই প্যানেলের ১৮জন প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। এরমধ্যে শাহাজাহান-মুজিবর  প্যানেলে সভাপতি  মো: শাহাজাহান, সহসভাপতি মো: আতিকুর রহমান আতিক, সাধারন সম্পাদক মো: মুজিবর রহমান মোড়ল, সহ-সাধারন সম্পাদক মো: আলমগীর হোসেন, সাংগঠনিক সম্পাদক মো: আব্দুল মান্নান মনা, দপ্তর সম্পাদক মো: মিজানুর রহমান মিনা, প্রচার সম্পাদক মো: সাজ্জাদ হোসেন, কোষাধ্যক্ষ মো: মুরাদ শেখ ও কার্যনির্বাহী সদস্য পদে মো: আব্দুর রউফ লাঙ্গল প্রতিক নিয়ে এবং কাদের-কামরুজ্জামান প্যানেলে সভাপতি আ: কাদের খান, সহসভাপতি মো: মাইদুল ইসলাম, সাধারন সম্পাদক মো: বেগ কামরুজ্জামান, সহ-সাধারন সম্পাদক মো: মিজানুর রহমান বিশ্বাস, সাংগঠনিক সম্পাদক মো: বিল্রাল হোসেন, দপ্তর সম্পাদক মো: শিমুল হোসেন, প্রচার সম্পাদক মো: শাহনেওয়াজ মোল্লা, কোষাধ্যক্ষ শেখ ইকবাল হোসেন ও কার্যনির্বাহী সদস্য পদে মো: আনোয়ার হোসেন মিন্টু হাতুড়ী প্রতিক নিয়ে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। এ নির্বাচনে উভয় প্যানেলই বিজয়ী হওয়ার বিষয়ে শতভাগ প্রত্যাশা ব্যক্ত করেছেন। শাহাজাহান-মুজিবর প্যানেলে সভাপতি পদপ্রার্থী মো: শাহাজাহান জানান, বিগত দুই বছরে তিনি প্রতিষ্ঠানের উন্নয়নের পাশাপাশি শ্রমিক-কর্মচারীদের পেশাগত উন্নয়ন, পদ মর্যাদা বৃদ্ধি ও সুখে-দুখে তাদের পাশে ছিলেন। সেজন্য বোটাররা তাকেই ভোট দিয়ে আবারও বিজয়ী করবেন বলে প্রত্যাশা করেন। সাধারন সম্পাদক পদপ্রার্থী মো: মুজিবর রহমান মোড়ল জানান, তিনি বিগত নির্বাচনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করে মা্ত্র ২ভোটের ব্যবধানে পরাজিত হন। তবে বিগত সময়ে তিনি শ্রমিক-কর্মচারীদের সুবিধা-অসুবিধায় পাশে ছিলেন। তেমনি ভোটারদের সুযোগ সুবিধা বৃদ্ধি এবং কর্মচারীদের পেশাগত মানোন্নয়নে ও পদোন্নতির জন্য কাজ করেছেন। এছাড়া প্রশাসনের সাথে সহযোগীতা করে প্রতিষ্ঠানের উন্নয়নে কাজ করেছেন। দূর্নীতিমুক্ত ও সুষ্ঠ নির্বাচন হলে তিনিও শাহাজাহান-মুজিবর প্যানেলের বিজয়ে শতভাগ আশাবাদী। প্রতিদ্বন্দ্বি কাদের-কামরুজ্জামান প্যানেলে সভাপতি পদপ্রার্থী আ: কাদের খান জানান, তিনি ২০০৬ সাল থেকে সাতবার কর্মচারী ইউনিয়নের নির্বাচনে বিজয়ী হয়ে ১৪বছর শ্রমিক-কর্মচারীদের সাথে থেকেছেন-পাশে থেকেছেন। তাদের উন্নয়নে সচেষ্ট ছিলেন। গত দুই বছর তিনি কমিটিতে না থাকলেও শ্রমিক-কর্মচারীরা দেখেছেন এবং বুঝেছেন তাদের প্যানেল ক্ষমতায় থাকলে প্রতিষ্ঠান ও কর্মচারীদের উন্নতি হয়। সেজন্য এবারও তিনি ভোটারদের মন জয় করে নির্বাচিত হবেন বলে জানান।

কেবল শিল্প কর্মচারী ইউনিয়নের দ্বি-বার্ষিক নির্বাচন পরিচালনা কমিশনের প্রধান মো: মাহবুবুর রহমান জানান, তিনি এবং অপর দুই সহকারী কমিশনার মাও. আতাউর রহমান ও মো: আহসান হাবিব ইতিমধ্যেই নির্বাচনের যাবতীয় প্রস্তুতি সম্পন্ন করেছেন। এবারের নির্বাচনে নতুন ভোটারসহ মোট ভোটার সংখ্যা ১৬৩জন। আগামী ২৪নভেম্বর সকাল ৯টা থেকে বিকাল সাড়ে তিনটা পর্যন্ত ভোট গ্রহন অনুষ্ঠিত হবে। সুষ্ঠভাবে নির্বাচন অনুষ্ঠানের জন্য প্রতিষ্টানের নিরাপত্তা কর্মী এবং পুলিশকে সহযোগীতার জন্য চিঠি দেয়া হয়েছে। যথাযথ নিরাপত্তার মধ্যেই নির্বাচন সুষ্ঠভাবে সম্পন্ন হবে বলেও তিনি জানান। ##