শুক্রবার, ১২ অগাস্ট ২০২২, ০৫:০৮ অপরাহ্ন
শিরোনাম
মোংলায় নাসা অ্যাপস চ্যালেঞ্জ বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন দলনেতা সুমিতকে সংবর্ধনা আমাদের শিক্ষা ও সংস্কৃতির ঐতিহ্য অন্তর্ভুক্ত করেই কারিকুলা বিশ্বমানের করতে হবে : খুবি উপাচার্য খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়ের  উপাচার্য সম্পাদিত গবেষণা গ্রন্থ প্রকাশ বঙ্গবন্ধুর রাজনৈতিক দর্শন বর্তমান ও ভবিষ্যৎ প্রজন্মের অনুপ্রেরণার উৎস হয়ে থাকবে : সিটি মেয়র খুলনায় জাতীয় শোক দিবসের কর্মসূচি কুয়েটের বঙ্গবন্ধু চেয়ার প্রফেসর নিয়োগ পেলেন প্রফেসর ড. খুরশীদা বেগম রূপসায় বিভিন্ন অনিয়মের প্রতিবাদে প্রধান শিক্ষককে ৩ ঘন্টা অবরুদ্ধ, মানববন্ধন এবং ভাঙচুর নগরীর বর্জ্য ব্যবস্থাপনার মানোন্নয়নে সম্মিলিত প্রচেষ্টা প্রয়োজন : সিটি মেয়র চুকনগরে কথিত সাংবাদিক ও সহযোগীদের চাঁদা দাবী : যুবকের আত্মহত্যা সময়ের চাহিদা অনুযায়ী আইন শিক্ষায় প্রযুক্তির সংশ্লেষ ঘটাতে হবে : খুবি উপাচার্য

মাদক ক্যান্সারের চেয়েও ভয়ংকর; শ্রম ও কর্মসংস্থান প্রতিমন্ত্রী

সংবাদদাতার নাম :
  • প্রকাশিত সময় রবিবার, ১৭ ফেব্রুয়ারী, ২০১৯
  • ৫৪৫ পড়েছেন

তথ্যবিবরণী :
শ্রম ও কর্মসংস্থান প্রতিমন্ত্রী বেগম মন্নুজান সুফিয়ান বলেন, মাদক ক্যান্সারের চেয়েও ভয়ংকর। ক্যান্সারে আক্রান্ত ব্যক্তি একা মারা যায় কিন্তু মাদক পুরো সমাজকে ধ্বংস করে দেয়।

তিনি রবিবার (১৭ ফেব্রুয়ারি) দুপুরে খুলনা জেলা উন্নয়ন সমন্বয় কমিটির সভায় প্রধান অতিথির বক্তৃতায় এসব কথা বলেন। জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ হেলাল হোসেনের সভাপতিত্বে তাঁর সম্মেলনকক্ষে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়।

শ্রম প্রতিমন্ত্রী বলেন, সরকার মাদক, দুর্নীতি ও জঙ্গিবাদের বিরুদ্ধে জিরো টলারেন্স ঘোষণা করেছে। মাদক ব্যবসার সাথে জড়িত ব্যক্তিদের বিরুদ্ধে সর্ব্বোচ শাস্তি মৃত্যুদন্ডের বিধান রেখে আইন করা হয়েছে। মাদকের সাথে সংশ্লিষ্ট কেউ আর রেহাই পাবে না।

সরকারের সকল উন্নয়ন কর্মকান্ড আন্তরিকতার সাথে বাস্তবায়নের আহবান জানিয়ে মন্নুজান সুফিয়ান বলেন, আমরা প্রত্যেকে যার যার অবস্থান থেকে নীবিড়ভাবে আমাদের দায়িত্ব পালন করলেই ২০৪১ সালের মধ্যে এদেশকে উন্নত দেশে পরিণত করা সম্ভব হবে। তিনি উন্নয়ন কর্মকান্ড সঠিকভাবে সমন্বয়ের জন্য যথাযথ কর্মকর্তাকে নিয়মিতভাবে মাসিক উন্নয়ন সমন্বয় সভায় অংশগ্রহণের আহবান জানান।

এসময় প্রতিমন্ত্রী পাটকল শ্রমিকদের জন্যও নূন্যতম মজুরী বাস্তবায়নের জন্য প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য সংশ্লিষ্টদের নির্দেশ দেন।
সভাপতি জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ হেলাল হোসেন বলেন, খুলনায় সার্বিক উন্নয়নের জন্য সমন্বিত উন্নয়ন পরিকল্পনা গ্রহণ করার উদ্যোগ গ্রহণ করা হয়েছে। প্রতিটি দপ্তরের কাছ থেকে উন্নয়ন পরিকল্পনা গ্রহণ করে তা সমন্বিত আকারে সরকারের কাছে পেশ করা হবে। তিনি সকল উন্নয়ন পরিকল্পনা সরকারের নির্বাচনী ইশতেহার এবং টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রার আলোকে গ্রহণ করার আহবান জানান।

সভায় প্রধানমন্ত্রীর অগ্রাধিকার প্রকল্পসহ অন্যান্য উন্নয়ন প্রকল্প নিয়ে আলোচনা করা হয়। সভায় জেলা পরিষদের প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা, সিভিল সার্জন, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক), উপজেলা চেয়ারম্যান, ইউএনওসহ কমিটির অন্যান্য সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।

সংবাদটি শেয়ার করার জন্য অনুরোধ করা হলো

এ ধরনের আরো সংবাদ

© All rights reserved by www.banglardinkal.com (Established in 2017)

Hwowlljksf788wf-Iu